Logo
শিরোনাম :
দাদন ব্যবসায়ীর হুমকিতে নিরাপত্তাহীনতায় সাংবাদিক জাবেদ খুলনায় নিখোঁজ সেই রহিমা বেগমকে জীবিত উদ্ধার সবুজকুঁড়ি শিল্পী গোষ্ঠীর দুই ইসলামী সাংস্কৃতিক যোদ্ধার প্রবাস গমন কালিয়ারভাঙ্গা ডিজিটাল সেন্টারে হামলার ঘটনায় নিন্দা ও প্রতিবাদ নবীগঞ্জে পিতার লাশ দাফন করে এসএসসি পরীক্ষা দিল রুহান নিরাপদ ও স্বাভাবিক প্রাতিষ্ঠানিক প্রসবে দেশে ষষ্ঠ স্থানে হবিগঞ্জ নবীগঞ্জে আ.লীগ-বিএনপির পাল্টাপাল্টি সমাবেশ : ১৪৪ ধারা জারি নবীগঞ্জে গ্রীনলাইন-শ্যামলী পরিবহনের বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষ ॥ আহত অর্ধশতাধিক নবীগঞ্জে নিখোঁজের ৩ দিন পর নদীতে পাওয়া গেলো শিশুর মরদেহ সাংবাদিক সুলতানের উপর হামলাকারীদের গ্রেফতার করতে ২৪ ঘন্টার আল্টিমেটাম

বাহুবলে দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষে পুলিশসহ আহত শতাধিক

জাগো নিউজ
জাগো নিউজ : বুধবার, মে ২৭, ২০২০

করেসপন্ডেন্ট, জাগো নিউজ :: হবিগঞ্জের বাহুবলে বিলে হাঁস ছড়ানোকে কেন্দ্র করে দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষে পুলিশসহ উভয়পক্ষের শতাধিক লোকজন আহত হয়েছেন। বুধবার বেলা ২ থেকে ৪টা পর্যন্ত টানা দুই ঘন্টাব্যাপী স্থায়ী সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে উপজেলার অলুয়া ও ভেড়াখাল চানপুর গ্রামবাসীর মধ্যে।

জানা যায়, উপজেলার অলুয়া গ্রামের মর্তুজ আলীর ধানের জমিতে হাঁসের দল গিয়ে জমি নষ্ট করে। হাঁসের মালিক ভেড়াখাল গ্রামের আমান উল্লা হাঁস নিতে আসলে উভয় পক্ষের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়, এক পর্যায়ে উভয় পক্ষের লোকজন দেশিয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। দুই ঘন্টা ব্যাপী স্থায়ী সংঘর্ষে পুলিশসহ শতাধিক লোকজন আহত হয়।
বাহুবল সার্কেলের সহকারি পুলিশ সুপার পারভেজ আলম চৌধুরীর নেতৃত্বে থানার ওসি, ওসি (তদন্ত) দাঙ্গা পুলিশ নিয়ে দুই ঘন্টাব্যাপী স্থায়ী সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রনে নিয়ে আসেন।

বিকেল সাড়ে ৫টা এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বাহুবল সার্কেলের সহকারি পুলিশ সুপার পারভেজ আলম চৌধুরী বলেন, এখনো ঘটনাস্থলে আছি, সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রন করতে কি পরিমান গুলি নিক্ষেপ করা হয়েছে তার হিসাব মিলাতে পারিনি। তবে তিনি বলেন, সংঘর্ষ এড়াতে ২০/২২ জনের মত দাঙ্গাবাজদের আটক করে থানায় পাটিয়েছেন।

ঘটনাস্থলে থাকা স্থানীয় সাংবাদিক জুবায়ের আহমদ বলেন, আমার দেখা থানার সেকেন্ড অফিসার শাহ আলি, এসআই শহিদুল, এ এসআই আবু সাঈদ, মাজেদ কনস্টেবল রফিক আহত হয়েছেন।
তিনি বলেন, হয়তে আরো পুলিশ আহত হয়েছেন। তবে আহতরা পুলিশের গ্রেফতার এড়াতে বাহুবল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে না গিয়ে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিচ্ছেন বলেও তিনি জানান। এদিকে সংঘর্ষের খবর পেয়ে পুলিশ সুপার মোহাম্মদ উল্ল্যা (বিপিএম,পিপিএম বার) ঘটনাস্থলে পরিদর্শন করেছেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

অন্যান্য সংবাদ
Theme Created By ThemesDealer.Com
x
x