Logo
শিরোনাম :
স্কটিশ পার্লামেন্টে প্রথম বাংলাদেশী এমপি নির্বাচিত হলেন নবীগঞ্জের ফয়ছল চৌধুরী ইফতারির জন্য নবীগঞ্জের শরিফাকে ‘হত্যা’, স্বামী-শ্বাশুড়ি আটক নবীগঞ্জ পৌরসভায় ১৫শ অসহায় মানুষের মাঝে প্রধানমন্ত্রী অর্থ সহায়তা বিতরণ বাউসা ইউনিয়নে ১৫শ মানুষের মাঝে ৪৫০ টাকা করে নগদ অর্থ সহায়তা বিতরণ আউশকান্দিতে ৫শ অসহায়দের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর অর্থ সহায়তা বিতরণ নবীগঞ্জের দীঘলবাকে প্রধানমন্ত্রীর উপহার নগদ অর্থ বিতরণ করলেন এমপি মিলাদ গাজী এক মুঠো হাসি’র উদ্যোগে বিনামূল্যে রক্তের গ্রুপ নির্ণয় কর্মসূচি সম্পন্ন হবিগঞ্জ শহরে সাড়ে ৪ হাজার মানুষকে সরকারি সহায়তা প্রদান নবীগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধা ও ২ প্রবাসীর ভূমি দখল করে পুকুর খননের অভিযোগ ! নবীগঞ্জে মাদকের আস্তানায় ইউএনও’র অভিযান : ৪ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড

তাহিরপুরে মাদ্রাসায় শিক্ষক নিয়োগে অনিয়ম-দুর্নীতি ও স্বজনপ্রীতির অভিযোগ

করেসপন্ডেন্ট,সুনামগঞ্জ / ১৭২ বার পঠিত
জাগো নিউজ : শনিবার, ২১ নভেম্বর, ২০২০

সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলা সদরের হিফজুল উলুম আলীয়া মাদ্রাসার ৬টি শূন্য পদে লোক নিয়োগে অনিয়ম-দূর্নীতি ও স্বজনপ্রীতির লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন তাহিরপুর হিফজুল উলুম আলীম মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সদস্য বাচ্চু মিয়া। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে পুরো উপজেলা ও জেলা জুড়ে ব্যাপক আলোচনা ও সমালোচনার ঝড় উঠেছে।

এলাকাবাসী ও ভুক্তভোগীদের দাখিলকৃত অভিযোগ সূত্রে জানা যায়-জেলার তাহিরপুর উপজেলা সদরে অবস্থিত তাহিরপুর হিফযুল উলুম আলীম মাদ্রাসার ৬টি শূন্য পদে গত ২৭শে অক্টোবর সিলেট সরকারী আলী মাদ্রাসায় অতিগোপনে ইন্টারভিউয়ের মাধ্যমে লোক নিয়োগ করা হয়েছে। তাতে সংশ্লিস্ট মাদ্রাসা কমিটির সভাপতি আমিনুল ইসলামের স্ত্রী মাহমুদা আক্তারকে হিসাব রক্ষক পদে,তার চাচাত ভাই সংশ্লিস্ট মাদ্রাসার কমিটির সদস্য তাজিমুল ইসলাম দুলালের আপন ভাই শরিফুল ইসলামকে উপাধ্যক্ষ পদে,ভগ্নিপতি মহিবুর রহমানকে অধ্যক্ষ পদে,বাতিজা মুনতাছির বিল্লাহকে অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার পদে,ভাবী শাপলা আক্তারকে আয়া পদে ও আবু আলী সানীকে নৈশ প্রহরী পদে নিয়োগ করা হয়।

এঘটনাটি এলাকাবাসীর মাঝে জানাজানি হওয়ার পর স্বজনপ্রীতি ও ঘুষ দূর্নীতির অভিযোগ তুলে গত ১৪ নভেম্বর শিক্ষা মন্ত্রণালয়,মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তর,দূর্নীতি দমন কমিশন কার্যালয় ও জেলা প্রশাসকের নিকট পৃথক ভাবে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন তাহিরপুর হিফজুল উলুম আলীম মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সদস্য বাচ্চু মিয়া। এরআগে গত ৪ নভেম্বর মাদ্রাসা শিক্ষা অধিদপ্তরে আলাদা ভাবে আরো ১টি লিখিত অভিযোগ দাখিল করেন জাহাঙ্গীর আলম নামের এক ভূক্তভোগী। একই তারিখে তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট বিভিন্ন পদের ৪জন প্রার্থী সাক্ষরিত আরো একটি লিখিত অভিযোগ দেওয়া হয়। অভিযোগকারীরা হলেন-সাইদুর রহমান অপু মিয়া,শবনম আক্তার,রুবিনা আক্তার রুবি ও জাহাঙ্গীর আলম।
তারা তাদের অভিযোগের অনুলিপি জেলা প্রশাসক,জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা,সংসদ সদস্য,প্রধানমন্ত্রীর একান্ত সচিব,শিক্ষা মন্ত্রণালয়,মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তর ও দ‚র্নীতি দমন কমিশন কার্যালয়ে পাঠানো হয়।
তাদের অভিযোগ পত্রে উল্লেখ করা হয়েছে-সকাল ১০টায় লিখিত পরিক্ষা নির্ধারিত করার পর সেই পরীক্ষা নেওয়া হয়েছে সাড়ে ১১টায়। এবং মাদ্রাসা কমিটির সভাপতির স্ত্রী,ভগ্নিপতি ও ছোট ভাইকে স্বজনপ্রীতির মাধ্যমে নিয়োগ করাসহ বাকি ৩জন লোক নিয়োগ দেওয়ার জন্য নেওয়া হয়েছে ৩০লক্ষ টাকা উৎকোচ।

এ বিষয়ে অভিযোগকারী সাইদুর রহমান অপু জানায়,আমি এই অনিয়ম,স্বজনপ্রীতি ও ঘুষ দ‚র্নীতির অভিযোগ করারপর আমাকে বিভিন্ন ভাবে চাপ প্রয়োগ করে মাদ্রাসা সভাপতি আমিনুল ইসলাম। আমি এই অনিয়মের বিচার চাই।

তাহিরপুর হিফজুল উলুম আলীম মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সদস্য বাচ্চু মিয়া বলেন-আমি ম্যানেজিং কমিটির সদস্য হওয়ার পরও মাদ্রাসার লোক নিয়োগের বিষয়ে কিছুই জানিনা। তাছাড়া বেশির ভাগ আবেদনকারী প্রার্থীদেরকে দেওয়া হয়নি ইন্টাভিউ কার্ড। এবং তাহিরপুর রেখে সিলেট আলীয় মাদ্রাসায় গিয়ে পরিক্ষা নেওয়ার কারণে সঠিক সময়ে সঠিক ভাবে লিখিত ও মৌখিক পরিক্ষা নেওয়া হয়নি। আমাদের মাদ্রাসা কমিটির সভাপতি আমিনুল ইসলাম সবাইকে ম্যানেজ করে তার লোকজনকে নিয়ে গোপনে মিটিং করে নিজের স্ত্রী,ভাই ও ভগ্নিপতিকে নিয়োগ দিয়েছে। আর অন্যদের কাছ থেকে মোটা অংকের অর্থ নিয়েছে জানতে পেরেছি। তাই জরুরী ভিত্তিতে এব্যাপারে আইনগত পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য সংশ্লিস্ট প্রশাসনের উপরস্থ কর্মকর্তাদের কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েছি।

এসব অভিযোগের প্রেক্ষিতে তাহিরপুর হিফজুল উলুম আলীম মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি আমিনুল ইসলাম বলেন-আমার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ আনা হয়েছে তা সঠিক নয়,যারা পরিক্ষা দিয়ে নিজের যোগ্যতা প্রমান করেছে তাদেরকেই চাকুরী দেওয়া হয়েছে। নিয়োগ প্রক্রিয়ায় কোন প্রকার অনিয়ম বা দ‚র্নীতি হয়নি। কিছু সংখ্যক লোক তাদের স্বার্থ হাসিল করতে না পেরে অহেতুক হয়রানীর চেষ্টা করছে।

তবে দায়েরকৃত একাধিক অভিযোগের ব্যাপারে তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পদ্মাসন সিংহ‘ জানান এই বিষয় একটি তদন্ত কমিটি ঘটন করে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করার কথা ছিল কিন্তু জেলা প্রশাসক কার্য্যালয় থেকে এই বিষয়ে পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে।

এব্যাপারে জেলা প্রশাসক আব্দুল আহাদ বলেন-তাহিরপুর হিফজুল উলুম আলীম মাদ্রাসার লোক নিয়োগে অনিয়ম-দ‚র্নীতি ও স্বজনপ্রীতি হওয়ার বিষয় নিয়ে একাধিক লিখিত অভিযোগ পেয়েছি,এব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


অন্যান্য সংবাদ
Theme Created By ThemesDealer.Com
error: কপি করা নিষেধ !
error: কপি করা নিষেধ !