Logo
শিরোনাম :
জোড়া খুনের রহস্য উদঘাটন: ‘উচিত শিক্ষা দিতে গিয়ে পাল্টাপাল্টি খুন’ আজমিরীগঞ্জে পূজায় বরাদ্দ সরকারি চাল গুদামে রেখেই পূজা উদযাপন কমিটির নেতার বাণিজ্য নবীগঞ্জের খাদ্য নিয়ন্ত্রক এর বদলী, অফিসার্স ক্লাবের সংবর্ধনা বানিয়াচংয়ে বিএনপির বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত নবীগঞ্জের বরখাস্তকৃত চেয়ারম্যান মুকুলকে শোকজ ! আসন্ন ইউপি নির্বাচন : কালিয়ারভাঙ্গায় আলোচনায় আছেন দেশী- প্রবাসী প্রার্থী বানিয়াচংয়ে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে সরকারি অনুদানের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ শায়েস্তাগঞ্জে বাস ও মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষ : নিহত ১ এস.আই আকবরকে ধরিয়ে দিলে ১০ লক্ষ টাকা পুরস্কার দেবেন যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী সামাদ মাধবপুরে এক প্রতিবন্ধী শিশুর লাশ উদ্ধার

নবীগঞ্জে কিশোরীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

জাগো নিউজ / ৫৫৪ বার পঠিত
জাগো নিউজ : শুক্রবার, ৭ আগস্ট, ২০২০

নবীগঞ্জ পৌরসভার শ্যামলী আবাসিক এলাকায় গলায় ফাঁস লাগােনা অবস্থায় এক কিশোরীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। শুক্রবার সকালে পৌরসভার শ্যামলী আবাসিক এলাকায় কিশোরীর নিজ বসত ঘরে এ ঘটনা ঘটে।
জানা যায়, ওই এলাকার মঙ্গল দাশের মেয়ে লিপি রাণী দাশ(১৩) কে তার মা ঘরে রেখে বাহিরে যান। বাসায় এসে দরজা বন্ধ দেখে জানালা দিয়ে দেখতে পান লিপি ঝুলন্ত অবস্থায় রয়েছে। পড়ে দরজা ভেঙে লিপির মরাদেহ উদ্ধার করা হয়।
লিপির মা জানান, প্রায় এক বছর আগে আজমিরীগঞ্জ উপজেলার রঞ্জিত নামের এক ছেলের সাথে সিলেট একটি হাসপাতালে দেখা হয় লিপির। সেখান থেকে দুই জনের পরিচয়। পরিচয়ের সূত্র ধরে দুই জনের মধ্যে প্রেমের সর্ম্পক গড়ে উঠে। বিষযটি আমরা জানতে পেরে নিষেধ করার পর তারা গোপনে তাদের সম্পর্ক চালিয়ে যায়। আমার ধারনা তাদের মাঝে কোন বিষয় নিয়ে ঝামেলা চলছিল এজন্যই গতকাল থেকে লিপি বলছিল তার কিছুই ভালো লাগছে না।
ওই এলাকার বাসিন্দারা জানান, কিছু দিন আগে এক ছেলেকে শ্যামলী এলাকায় ওই মেয়েকে নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় আটক করা হয়। পরে পরিবারের জিম্মায় দেয়া হয়েছিল।
এদিকে ঘটনার খবর পেয়ে নবীগঞ্জ থানার এস আই অমিতাভ তালুকদার ঘটনাস্থলে গিয়ে মৃত দেহের সুরাতাহাল রিপোর্ট তৈরি করে ময়না তদন্তের জন্য লাশ মর্গে প্রেরন করেন।
বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নবীগঞ্জ থানার ওসি মোঃ আজিজুর রহমান।

হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ পৌরসভার শ্যামলী আবাসিক এলাকায় গলায় ফাঁস দেয়া অবস্থায় লিপি রাণী দাশ(১৩) নামে এক কিশোরীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।
শুক্রবার সকালে নবীগঞ্জ পৌরসভার শ্যামলী আবাসিক এলাকায় কিশোরীর নিজ বসত ঘর থেকে ঝুলন্ত লাশ উত্তর করা হয় ।
লিপি ওই নবীগঞ্জ পৌর এলাকার শ্যামলী আবাসিক এলাকার মঙ্গল দাশের মেয়ে।
জানা যায়, নবীগঞ্জ পৌরসভার শ্যামলী এলাকার মঙ্গল দাশের মেয়ে লিপি রাণীকে তার মা ঘরে রেখে বাহিরে যান। বাসায় এসে দরজা বন্ধ দেখে জানালা দিয়ে দেখতে পান লিপি ঝুলন্ত অবস্থায় রয়েছে । পড়ে দরজা ভেঙে লিপির মরদেহ উদ্ধার করা হয়।
লিপির মা জানান, প্রায় এক বছর আগে আজমিরীগঞ্জ উপজেলার রঞ্জিত নামের এক ছেলের সাথে সিলেট একটি হাসপাতালে দেখা হয় লিপির। সেখান থেকে দুই জনের পরিচয়। পরিচয়ের সূত্র ধরে দুই জনের মধ্যে প্রেমের সর্ম্পক গড়ে উঠে। বিষযটি আমরা জানতে পেরে নিষেধ করার পর তারা গোপনে তাদের সম্পর্ক চালিয়ে যায়। আমার ধারনা তাদের মাঝে কোন বিষয় নিয়ে ঝামেলা চলছিল এজন্যই গতকাল থেকে লিপি বলছিল তার কিছুই ভালো লাগছে না।
ওই এলাকার বাসিন্দারা জানান, কিছু দিন আগে এক ছেলেকে শ্যামলী এলাকায় ওই মেয়েকে নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় আটক করা হয়। পরে পরিবারের জিম্মায় দেয়া হয়েছিল।
এদিকে ঘটনার খবর পেয়ে নবীগঞ্জ থানার এস আই অমিতাভ তালুকদার ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ
উদ্ধার করে সুরাতাহাল রিপোর্ট তৈরি করা হয়।
পরব ময়না তদন্তের জন্য হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরন করা হয়।

নবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আজিজুর রহমান, ‘জাগো নিউজকে’এঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।


অন্যান্য সংবাদ
Theme Created By ThemesDealer.Com
error: কপি করা নিষেধ !
error: কপি করা নিষেধ !