Logo
শিরোনাম :
বাংলা একাডেমীর সাহিত্য পুরস্কার পাচ্ছেন মেট্রোপলিটন ইনভার্সিটির প্রফেসর সুরেশরঞ্জন হবিগঞ্জে ময়নামতি রেজিমেন্টের র‌্যালি অনুষ্ঠিত স্থানীয় ছাত্র-ছাত্রীদের জন্যে শেভরনের বৃত্তি চলমান মরুর বুকে বিশাল এক ফুলের রাজ্য ”দুবাই মিরাকল গার্ডেন” জামিআ আরাবিয়া দিনারপুর মাদ্রাসার ৬৭তম ইসলামী সম্মেলন অনুষ্ঠিত আসছে শফিক তুহিন ও লায়লার কন্ঠে নতুন গান ‘পাগল’ নবীগঞ্জ পৌর নির্বাচনে সূক্ষ্ম কারচুপির মাধ্যমে ফলাফল পরিবর্তন করা হয় – উপজেলা যুবলীগ নবীগঞ্জে শিক্ষক সমিতির এক নেতার বিরুদ্ধে কাউন্সিলর প্রার্থীর টাকা নেয়ার অভিযোগ হবিগঞ্জে প্রধানমন্ত্রীর উপহার ঘর পেলো ৩২৫টি পরিবার নবীগঞ্জে ৭ কেজি গাজাসহ এক মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

ঈগল মিউজিক থেকে অ্যাওয়ার্ড পেলেন তরুণ গীতিকার রাহুল

বিনোদন ডেস্ক / ৪১৩ বার পঠিত
জাগো নিউজ : মঙ্গলবার, ২৫ আগস্ট, ২০২০

জনপ্রিয় ইউটিউব চ্যানেল ও মিউজিক কোম্পানি ঈগল মিউজিক থেকে অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন নবীগঞ্জের তরুণ উদীয়মান গীতিকার রাহুল আচার্য্য।

গত জুন মাসে গীতিকার রাহুল আচার্য্যের লেখা ব্যান্ড ঘুড়ির আউস কইরা বাপে আমায় করাইছে বিয়া গানটি ঈগল মিউজিক ইউটিউব চ্যানেল থেকে ১ কোটি ভিউ অতিক্রম করে। গানটির সুরকার ছিলেন ব্যান্ড ঘুড়ির সিইও আকাশ ইসলাম। গানটিতে কণ্ঠ দিয়েছেন ব্যান্ড ঘুড়ি ব্যান্ডের ভোকালিস্ট লিটল স্টার সৌরভ ইসলাম এবং আকাশ ইসলাম। গানটির মিউজিক ডিরেক্টর ছিলেন অংকুর মাহমুদ।

এর প্রেক্ষিতে গত শুক্রবার ঢাকায় ঈগল মিউজিক ইউটিউব চ্যানেলের কার্যালয়ে চ্যানেল কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে ১কোটি ভিউ উপলক্ষ্যে একটি অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তরুণ গীতিকার রাহুল আচার্য্যসহ গানটিতে সংশ্লিষ্ট সবাইকে অ্যাওয়ার্ডটি প্রদান করা হয়েছে। গত বছর ভাইরাল হওয়া রাহুল আচার্য্যের লেখা সিলেটি ও ফুড়ি কউ আমারে ভালা ফাউনি গানটির কথা ও সুর এখনো দর্শকদের হৃদয় ছুঁয়ে যায়। তাঁর লেখা কয়েকটি জনপ্রিয় গান হচ্ছে- আহারে আহারে, সুন্দরী রমনী, চাল চোর মেম্বার, কালা মেয়েই ভালা, মায়ের আচঁল বাপের হোটেল, শেফালি খেলিস না তুই আমার মন নিয়া ইত্যাদি।

তাঁর সাথে যোগাযোগ করে তাঁর অনুভূতি জানতে চাওয়া হলে তিনি আবেগাপ্লুত হয়ে ঈগল মিউজিক কে ধন্যবাদ দিয়ে জানান, এটা তাঁর লেখালেখির জীবনে অনেক বড় একটা প্রাপ্তি। সেই সাথে তিনি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন ব্যান্ড ঘুড়ির কর্ণধার আকাশ ইসলাম এবং তাঁর ব্যান্ডের সকল সদস্যের প্রতি, যাদের হাত ধরেই এত দূর আসা।
তাঁর লেখালেখির জীবনের শুরুতে অনুপ্রেরণা পাওয়ার কথা জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, আমার লেখালেখির জীবনে শুরুতে অনুপ্রেরণা দিয়ে আমার পাশে থাকা মানুষ গুলো হচ্ছে- বড় ভাই মুর্শেদ আলী সবুজ, সবুর ভাই, সবুজ ভাই, বাপ্পী আচার্য্য (দাদা), বন্ধু আশরাফুল হাসান ফাহাদ, মোসাদ্দিক হোসেন, বিজন আচার্য্য, মোস্তাফিজুর, রাহুল ধর, ছোট ভাই মিজান, মিঠুন, শুভ সহ আরো অনেকেই৷


অন্যান্য সংবাদ
Theme Created By ThemesDealer.Com
error: কপি করা নিষেধ !
error: কপি করা নিষেধ !